জেলা সংবাদ

ছাত্রলীগ নেতার প্রক্সি দিতে গিয়ে যুবক কারাগারে

প্রকাশ: ১২ ডিসেম্বর ২০১৯

শরীয়তপুর প্রতিনিধি ■ বাংলাদেশ প্রেস

শরীয়তপুরে ডিগ্রি পরীক্ষায় ছাত্রলীগ নেতা সোহাগ বেপারীর প্রক্সি দিতে গিয়ে এক যুবক প্রশাসনের হাতে ধরা পড়েছে। ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে এক বছর বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়ে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এ নিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে।

শরীয়তপুর সরকারি গোলাম হায়দার খান মহিলা কলেজ সূত্রে জানা যায়, এ কলেজ কেন্দ্রে বুধবার ডিগ্রি প্রথমবর্ষ দর্শন পরীক্ষায় সদর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সোহাগ বেপারীর পরীক্ষা দেয়ার কথা ছিল। কিন্তু তিনি পরীক্ষা না দিয়ে তার পরীক্ষা অন্যজন দেন। শরীয়তপুর সরকারি গোলাম হায়দার খান মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ মো. রেজাউল করিম জানান, সোহাগ বেপারীকে অসুস্থ দেখিয়ে তাকে বেডে পরীক্ষা দেয়ার সুযোগ করে দিয়েছে কলেজ কর্তৃপক্ষ।

কিন্তু সোহাগ বেডে পরীক্ষা না দিয়ে হাসেম নামে একজনকে দিয়ে প্রক্সি দেয়ায়। পরীক্ষা চলাকালে কলেজের অফিস সহায়করা এটি জানতে পেরে সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ মাহবুব রহমানকে জানান। এরপর তিনি সোহাগ বেপারীকে না পেয়ে তার পরিবর্তে বহিরাগত হাসেম হাওলাদারকে দেখতে পান। হাসেম নিজেকে সোহাগ বেপারী বলে পরিচয় দিলে কাগজপত্র ও প্রবেশপত্রের ছবির সঙ্গে মিল না থাকায় তাকে আটক করা হয়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাকে এক বছর বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়। এ সময় সোহাগ বেপারীকে পাওয়া যায়নি।