জেলা সংবাদ

  • একদিনে দুই ভাইয়ের লাশের ভার বইতে হল প্রতিমন্ত্রী পলকে !

    একদিনে দুই ভাইয়ের লাশের ভার বইতে হল প্রতিমন্ত্রী পলকে !

  • ম্যাজিস্ট্রেটের এক হাতে গোলাপ থাকবে, অন্য হাতে থাকবে হাতকড়া !

    ম্যাজিস্ট্রেটের এক হাতে গোলাপ থাকবে, অন্য হাতে থাকবে হাতকড়া !

  • প্রধানমন্ত্রী হাত থেকে পদক গ্রহণ করেন কুষ্টিয়া পৌরসভার মেয়র

    প্রধানমন্ত্রী হাত থেকে পদক গ্রহণ করেন কুষ্টিয়া পৌরসভার মেয়র

  • জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উপলক্ষে কুড়িগ্রামে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত

    জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উপলক্ষে কুড়িগ্রামে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত

  • সিংড়ায় মৎস্য কর্মকর্তার সংবাদ সম্মেলন

    সিংড়ায় মৎস্য কর্মকর্তার সংবাদ সম্মেলন

ভোলায় শ্বশুর কর্তৃক জামাইকে বেধরক মারপিঠ, অবশেষে বিষপান!

প্রকাশ: ১১ এপ্রিল ২০১৮

আল-আমিন এম তাওহীদ ,ভোলা প্রতিনিধি, বাংলাদেশ প্রেস

ঢাকা শহরের দীর্ঘ ২বছরের আয় করা অর্থ শ্বশুর বাড়িতে। স্ত্রীকে বিশ্বাস করেই সকল টাকা পয়সা দিয়েছিলেন। অবশেষে টাকা পয়সা আত্মসাৎ বৌকে নিয়ে নানা তালবাহানা। শ্বশুর থানায় দায়ের করেছেন মিথ্যা মামলা, হয়েছে কিছুদিন আগে সমাধান, মিল হয়নি ওই সমাধানের কথা এবং কাজের। চলছে বৌ আর শ্বশুরের নানা নাটকীয়। স্ত্রী হয়েছেন শ্বশুরের হোটেলের কর্মচারী। বরণ-পোষন দিয়েও স্ত্রীকে জীবন সঙ্গী করতে পারেননি। এরই কষ্টের বাধঁ ভেঙ্গে বিষপানে নিজের জীবনকে বির্সজন দিতেই প্রস্তুত হয়েছিলেন ভোলার সদর উপজেলার ধনিয়া ইউনিয়নের মৃত নুরমোহাম্মাদের ছেলে মোঃ মহসিন।

মঙ্গলবার (১০এপ্রিল) রাত আনুমানিক ৯টার দিকে, বাপ্তা ইউনিয়নের ভোটেরঘর এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটে।

এলাকাবাসী সূত্রে জানান, ধনিয়া ইউনিয়নের ছেলে মোঃ মহসিন (৩৫) আমাদের বাপ্তা এলাকার বাসিন্দা মোঃ ইউনুসের প্রথম সংসারের বড় মেয়ে রাবেয়াকে ২ বছর আগে বিবাহ করেছে। আজকের রাতে ইউনুসসহ কয়েকজনে মিলে ছেলেটিকে বেধরক মারপিঠ করেছে। কিছুক্ষণ পর শুনেছি নাকি মহসিন বিষপান করেছে। এলাকার লোকজন উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠিয়েছে। মেয়ে তো শ্বশুর বাড়িতে মনে হয় থাকছেনা ওর বাবার ( ইউনুসের) হোটেলে সব সময় কাজ করতে দেখেছি। আর ইউনুস দুটি বিবাহ করেছে এ মেয়ের জামাই মহসিন প্রথম সংসারের।

মহসিনকে উদ্ধারকারী রিক্সাচালক জানান, আমি যাত্রী নিয়ে ভোলা থেকে এসেছিলাম বাপ্তায়। যাত্রী নামিয়ে দিয়ে আবার ভোলায় যাওয়ার পথিমধ্যে বাপ্তা ভোটেরঘর রাস্তার পাশে পরিত্যাক্ত অবস্থায় দেখতে পাই লোকটিকে। কাছে গিয়ে দেখি প্রচুর বিষের গন্ধ আসে। মুমুর্ষ অবস্থায় আমার রিক্সায় উঠিয়ে হাসপাতালে নিয়ে আসি।

মহসিনের পরিবার সূত্রে জানায়, মহসিন ঢাকায় রংয়ের কন্ট্রাকটর হিসেবে দীর্ঘ ৭বছর ঢাকায় কাজ করে। আমাদের পরিবারের সাথে তেমন একটা যোগাযোগ হয়না। মাঝে মধ্যে মোবাইলে কথা হয়। পরিবারের কোন টাকা পয়সাও দেয়না। টাকা পয়সা না দিলেও কোন সময় জিজ্ঞেস করিনি কোথায় বা কার কাছে দেয়। কিছুদিন আগে মহসিনের শ্বশুর ইউনুস থানায় একটি মিথ্যা মামলা দায়ের করেছে, সেখানে আমাদেরকেও আসামি করেছে। পরে থানায় সালিশ বিচার হয়েছে। সেখানে উল্লেখ করেছে ১মাস আমাদের বাড়িতে থাকবে পরে মহসিনের সাথে বৌ ঢাকায় চলে যাবে। ১মাস যেতে না যেতেই বৌ বলেছে আমার আপন ছোট ভাইকে মোসলমানী করিয়াছে এ সুবাদে চলে যায় বাবার বাড়িতে বৌ। মঙ্গলবার মহসিন ঢাকা থেকে ভোলায় আসছে কিনা তা আমরা জানিনা। রাত সাড়ে ১১টার সময় শুনেছি নাকি বিষপান করেছে। ওর সাথে সম্পর্ক শ্বশুর বাড়ির সাথে আমরা কিছু জানিনা। যত আয় করেছে তা শ্বশুরের কাছে দিয়েছে। আমরা এবিষয় নিয়ে কখনো জিজ্ঞেস করিনি।

এবিষয়ে মহসিনের শ্বশুর মোঃ ইউনুস জানতে চাইলে, তাকে পাওয়া যায়নি। ব্যবহৃত ০১৮৫৬৬২০৯৬৩ মুঠোফোনও বন্ধ পাওয়া যায়।

মহসিনের স্ত্রী রাবেয়া জানান, ১০ এপ্রিল ভোর ৫টায় আমাদের বাড়িতে আসছিলো। আবার বিকালে আসছে। তাকে আমরা কোন মারধর করিনি। গন্যমান্য ব্যক্তিদের নিয়ে মহসিনকে আসতে বলেছি। মহসিন খারাপ ভাষায় আচারণ করেছে। আমাকে হুমকি দামকি দিয়েছে এজন্য আমি ঢাকা যায়নি।

মহসিন বর্তমানে ভোলা সদর হাসপাতালের পুরুষ মেডিসিন ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন রয়েছে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে মহিসেনর।



আরও পড়ুন

শিক্ষিত জাতি গড়ে তোলার বিকল্প নেই: প্রধানমন্ত্রী

শিক্ষিত জাতি গড়ে তোলার বিকল্প নেই: প্রধানমন্ত্রী

দেশকে দারিদ্র্যমুক্ত করতে হলে শিক্ষিত জাতি গড়ে তোলার কোনো বিকল্প ...

নির্বাচনের আগে ছাড়া পাচ্ছেন না নওয়াজ শরীফ

নির্বাচনের আগে ছাড়া পাচ্ছেন না নওয়াজ শরীফ

সামনের সপ্তাহেই ভোট পাকিস্তানে। প্রচারের ব্যস্ততা এখন তুঙ্গে। আর সেই ...

'অন্ধকার গুহায় ১০ দিন আমরা শুধু পানি খেয়েছি'

'অন্ধকার গুহায় ১০ দিন আমরা শুধু পানি খেয়েছি'

থাইল্যান্ডের থাম লুয়াং গুহা থেকে উদ্ধার করা সেই ১২ খুদে ...

জোসনার আসল মানুষটাইতো নেই ..

জোসনার আসল মানুষটাইতো নেই ..

বড় ভাই হুমায়ূন আহমেদ তখন আমেরিকায় পিএইচডি করতে গেছে। আমার ...

"মানচিত্র যখন দাবার ঘর"!

"মানচিত্র যখন দাবার ঘর"!

২০০৮ সালের জুলাই মাসের প্রথম সপ্তাহ। আমি তখন দৈনিক সমকালের ...

একদিনে দুই ভাইয়ের লাশের ভার বইতে হল প্রতিমন্ত্রী পলকে !

একদিনে দুই ভাইয়ের লাশের ভার বইতে হল প্রতিমন্ত্রী পলকে !

তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলকের খালাতো দুই ভাই ...

যেভাবে জানা যাবে এইচএসসির ফল

যেভাবে জানা যাবে এইচএসসির ফল

এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল আজ বৃহস্পতিবার প্রকাশ হবে। শিক্ষামন্ত্রী ...

ম্যাজিস্ট্রেটের এক হাতে গোলাপ থাকবে, অন্য হাতে থাকবে হাতকড়া !

ম্যাজিস্ট্রেটের এক হাতে গোলাপ থাকবে, অন্য হাতে থাকবে হাতকড়া !

এক হাতে গোলাপ আর অন্য হাতে হাতকড়া থাকবে ভ্রাম্যমান আদালত ...