নারী

  • কুমারী মেয়েদের হাটে বিক্রি

    কুমারী মেয়েদের হাটে বিক্রি

  • দিনের পর দিন ধর্ষণঃ ধর্ষণের ভিডিও দেখিয়ে হুমকি! ভয়াবহ অভিযোগ প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বিরুদ্ধে

    দিনের পর দিন ধর্ষণঃ ধর্ষণের ভিডিও দেখিয়ে হুমকি! ভয়াবহ অভিযোগ প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বিরুদ্ধে

  • গৃহকর্ত্রীর নির্যাতনে পালিয়ে হাসপাতালে গৃহকর্মী

    গৃহকর্ত্রীর নির্যাতনে পালিয়ে হাসপাতালে গৃহকর্মী

  • মুয়াজ্জিনের বিরুদ্ধে প্রতিবন্ধী ধর্ষণের অভিযোগ

    মুয়াজ্জিনের বিরুদ্ধে প্রতিবন্ধী ধর্ষণের অভিযোগ

  • কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র: লক্ষ্মীপুরে ছাত্রীদের যৌন হয়রানির অভিযোগ প্রমাণিত!

    কারিগরি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র: লক্ষ্মীপুরে ছাত্রীদের যৌন হয়রানির অভিযোগ প্রমাণিত!

ঝিনাইদহে গৃহবধুকে হত্যার অভিযোগ স্বামী পলাতক

প্রকাশ: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৯

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ■ বাংলাদেশ প্রেস

ঝিনাইদহ সদর উপজেলার চন্দ্রজানী গ্রামে সুখী খাতুন (২৮) নামের এক গৃহবধুর হত্যার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় স্বামী ও তার পরিবারের লোকজন পলাতক রয়েছে। মঙ্গলবার সকালে এ ঘটনা ঘটে। নিহত সুখী খাতুন ওই গ্রামের সবুজ হোসেনের স্ত্রী ও শৈলকুপা উপজেলার হারুনদিয়া গ্রামের গ্রামের নুর আলীর মেয়ে।তার মাথা.কান সহ শরিরের বিভিন্ন জায়গা আঘাতের চিহ্ন রয়েছে ।

নিহত সুখী খাতুনের বাবা নুর আলী জানান, ৪ বছর পূর্বে পারিবারিকভাবে সবুজের সাথে সুখ্রী বিয়ে হয়। বিয়ের পর সামিয়ার গর্ভে এক কন্যা সন্তানের জন্ম হয়। বিয়ের পর থেকে সুখীর পরিবারের কাছে যৌতুক দাবি করে প্রায়ই শারীরিক ও মানষিক নির্যাতন করে আসছিল সবুজ। এরই জের ধরে মঙ্গলবার সকালে স্বামী সবুজ ও তার পরিবারের লোকজন তাকে শারীরিক নির্যাতন করে গলাই রশি দিয়ে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে বাথরুমে ঝুলিয়ে রাখে। প্রতিবেশিদের মাধ্যমে খবর পেয়ে সদর থানা পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। তার শরীরে বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। এ ঘটনার পর থেকে সবুজ ও তার পরিবারের লোকজন পলাতক রয়েছে। এছাড়াও তারা টাকা দিয়ে ঘটনায় ধামা চাপা দেওয়ার চেষ্টা করছে।এ ব্যাপারে সদর থানার ওসি মিজানুর রহমান খান বলেন, এ ঘটনায় থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। ময়নাতদন্তে যদি হত্যার রিপোর্ট আসে তবে হত্যা মামলা নেওয়া হবে।

পরবর্তী খবর পড়ুন : ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজ গভর্নিং বডির নির্বাচন অসুস্থ প্রতিযোগিতা!


আরও পড়ুন

টাকা পাওয়ার কথা স্বীকার করা ৩ জাবি ছাত্রলীগ নেতা

টাকা পাওয়ার কথা স্বীকার করা ৩ জাবি ছাত্রলীগ নেতা

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ শুরু হওয়ার পর শাখা ছাত্রলীগকে ...

কাউন্সিলে বড় পরিবর্তন আসছে আওয়ামী লীগে

কাউন্সিলে বড় পরিবর্তন আসছে আওয়ামী লীগে

কাউন্সিলের মাধ্যমে বড় ধরনের পরিবর্তন আসছে আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে। দল ...

বিমানের যাত্রীসেবা নিশ্চিত করার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

বিমানের যাত্রীসেবা নিশ্চিত করার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

সততা এবং নিষ্ঠার সঙ্গে বিমানের যাত্রীসেবা নিশ্চিত করার আহ্বান জানিয়েছেন ...

কুমারী মেয়েদের হাটে বিক্রি

কুমারী মেয়েদের হাটে বিক্রি

বুলগেরিয়ার স্টারা জাগোরা। রঙিন মেলা বসেছে শহরের। মেলার মতোই সাজানো ...

আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্টের সমাবেশে হামলা, নিহত ২৪

আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্টের সমাবেশে হামলা, নিহত ২৪

আফগানিস্তানের পারওয়ান প্রদেশে প্রেসিডেন্ট আশরাফ ঘানির নির্বাচনি সমাবেশে বিস্ফোরণে নারী ...

শামচ্ছুজামান দুদু হুকুমের আসামি হলেন কী? প্রধানমন্ত্রী নিরাপত্তা বিষয়ে কোন আপোষ নয়

শামচ্ছুজামান দুদু হুকুমের আসামি হলেন কী? প্রধানমন্ত্রী নিরাপত্তা বিষয়ে কোন আপোষ নয়

সাম্প্রতিক সময়ে সামচ্ছুজামান দুদু "ডিবিসি" চ্যানেলে টকশোতে অংশ নেন। মাননীয় ...

নওগাঁর রাণীনগরের সাদেকুল তিন বছর যাবত গৃহবন্দি!

নওগাঁর রাণীনগরের সাদেকুল তিন বছর যাবত গৃহবন্দি!

নওগাঁর রাণীনগর উপজেলার ভবানীপুর মোবারক পাড়া গ্রামে সাদেকুল ইসলাম (৩৮) ...

স্বর্ণজয়ী রোমান সানার মায়ের চিকিৎসার দায়িত্ব নিলেন প্রধানমন্ত্রী

স্বর্ণজয়ী রোমান সানার মায়ের চিকিৎসার দায়িত্ব নিলেন প্রধানমন্ত্রী

এশিয়া কাপ ওয়ার্ল্ড র‌্যাঙ্কিং টুর্নামেন্টে (স্টেজ-৩) স্বর্ণ পদক জয় করা ...