নির্বাচন

  • নিবন্ধন ঝুঁকিতে রয়েছে বিএনপি

    নিবন্ধন ঝুঁকিতে রয়েছে বিএনপি

  • কর্ণফুলী-আনোয়ারা আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ

    কর্ণফুলী-আনোয়ারা আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ

  • নির্বাচন প্রক্রিয়া পর্যবেক্ষণ করছে না জাতিসংঘ

    নির্বাচন প্রক্রিয়া পর্যবেক্ষণ করছে না জাতিসংঘ

  • আসন্ন জাতীয় নির্বাচন: জোট ও ভোটের হালচাল

    আসন্ন জাতীয় নির্বাচন: জোট ও ভোটের হালচাল

  • ১৭৩ আসনে বিএনপির সম্ভাব্য একক প্রার্থী , ৩১টি আসন শরিক দলগুলোকে

    ১৭৩ আসনে বিএনপির সম্ভাব্য একক প্রার্থী , ৩১টি আসন শরিক দলগুলোকে

রাসিক নির্বাচনী প্রচারণায় এগিয়ে লিটন

প্রকাশ: ১২ জুলাই ২০১৮

রাজনৈতিক বিশ্লেষক, বাংলাদেশপ্রেস

রাজশাহীর রাজনীতির মাঠে বইছে নির্বাচনী হাওয়া।চায়ের দোকানসহ বিভিন্ন আড্ডায়, অফিসে কিংবা বাড়িতে সবখানেই এখন আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু রাজশাহী সিটির মেয়র নির্বাচন।রাজশাহীতে দলীয় মনোনয়ন দেয়া হয়েছে দলের নগর সভাপতি এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটনকে। জাতীয় চার নেতার অন্যতম শহীদ এ এইচ এম কামারুজ্জামানের সন্তান লিটন গত নির্বাচনে পরাজিত হলেও ২০০৮ সালের নির্বাচনে জয়লাভ করেন এবং নগরীর ব্যাপক উন্নয়ন করেন। এবারের নির্বাচনে দলকে জয় উপহার দিতে চান এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন।


মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল ২০১৩ সালের রাজশাহী সিটি নির্বাচনেজয় লাভ করে দায়িত্বে আসেন।


তবে নির্বাচন পরবর্তী সময় থেকেই নাশকতার কারণেকরামামলারকারণেস্বপদে ঠিকমতো বসতেই পারেননি বর্তমান মেয়র, ফলে নগরবাসীর উন্নয়নে সময়ও দিতে পারেননি।


ইতোমধ্যে লিটনের পক্ষে মাঠে নেমেছে তার কর্মী সমর্থকরা। স্থানীয় যুবকদের মাঝে দেখা দিয়েছে কর্মচাঞ্চল্য।এর পাশাপাশি মাঠ পর্যায়ে বৈঠকের মাধ্যমে নগরীর প্রতিটি পরিবারের নারী সদস্যদের ভোটে অংশ গ্রহণের প্রয়োজনীয়তা তুলে ধরার মাধ্যমেও আ.লীগের প্রতি আকৃষ্ট করাতে চেষ্টা করে যাচ্ছেন কর্মীরা। অন্য সব প্রচারণা পদ্ধতি পুরাতন হলেও আওয়ামী লীগের এই মাঠ পর্যায়ে বৈঠকটি বেশ ফলপ্রসূ হবে বলে সংশ্লিষ্ট অনেকেই মনে করছেন।


মহানগর আওয়ামী লীগের এক নেতা বলেন, আমরা আগামী সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে জয়ের আশা রাখি।দলীয় ভাবে আমাদের এই ঐক্য আমদেরকে জয়ের পথে আরও এগিয়ে নিয়ে যাবে। রাজশাহীর উন্নয়নে সিটি কর্পোরেশন জনগণ মনে করে খায়রুজ্জামান লিটনের কোন বিকল্প নেই। তার সময়ের উন্নয়নের চিত্র নগরবাসীর সামনেই রয়েছে।


আরও পড়ুন

হাতির চাঁদাবাজি দিন দিন বাড়ছে

হাতির চাঁদাবাজি দিন দিন বাড়ছে

,হাতি দিয়ে মাহুতের এই চাঁদাবাজি সারাদেশে বর্তমানে একটা আলোচনার বিষয় ...

মুন্সিগঞ্জে র‌্যাবের সাথে  বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহত

মুন্সিগঞ্জে র‌্যাবের সাথে বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহত

মুন্সিগঞ্জে র‌্যাবের সাথে  বন্দুকযুদ্ধে আব্দুল মালেক নামের এক মাদক ব্যবসায়ী ...

তেহরানকে বৈশ্বিক বাণিজ্য থেকে বিচ্ছিন্ন করতে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের প্রতি আহ্বান

তেহরানকে বৈশ্বিক বাণিজ্য থেকে বিচ্ছিন্ন করতে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের প্রতি আহ্বান

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প তেহরানকে বৈশ্বিক বাণিজ্য তেহরানকে বৈশ্বিক বাণিজ্য থেকে ...

জালিম সরকার ক্ষমতায় আছে :  দুদু

জালিম সরকার ক্ষমতায় আছে : দুদু

এদিকে, বিএনপির ভাইস-চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু বলেছেন, ‘জালিম সরকার ক্ষমতায় আছে ...

জাতীয় ঐক্য প্রত্যাখ্যান করলেন যারা

জাতীয় ঐক্য প্রত্যাখ্যান করলেন যারা

সম্প্রতি ২০ দলের সমন্বয়ে গঠন করা হয়েছে জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়া, ...

নিবন্ধন ঝুঁকিতে রয়েছে বিএনপি

নিবন্ধন ঝুঁকিতে রয়েছে বিএনপি

আগামী জাতীয় নির্বাচনে বিএনপি নিবন্ধন ঝুঁকিতে রয়েছে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন ...

প্রথম বর্ষ স্নাতক সম্মান ও পাস কোর্সে ভর্তির আবেদন শুরু

প্রথম বর্ষ স্নাতক সম্মান ও পাস কোর্সে ভর্তির আবেদন শুরু

চলতি শিক্ষাবর্ষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত সরকারি সাত কলেজে প্রথম বর্ষ ...

এনার্জি ড্রিংকস’ নিষিদ্ধ

এনার্জি ড্রিংকস’ নিষিদ্ধ

জনস্বাস্থ্যের মারাত্মক ঝুঁকির কথা বিবেচনা করে কোকাকোলা বা পেপসি’র মত ...