সম্পাদকীয়

  • আমাদের বুদ্ধিজীবী এবং ভুট্টোর নিম্মাঙ্গের ছবি

    আমাদের বুদ্ধিজীবী এবং ভুট্টোর নিম্মাঙ্গের ছবি

  • ভীতি ছড়িয়ে নয়--'লুটেরা, হাইব্রিড, কাওয়া' নিধনই হতে পারে আওয়ামীলীগের তৃতীয়বার সরকার গঠনে'র সোপান

    ভীতি ছড়িয়ে নয়--'লুটেরা, হাইব্রিড, কাওয়া' নিধনই হতে পারে আওয়ামীলীগের তৃতীয়বার সরকার গঠনে'র সোপান

  • আত্মস্বীকৃত খুনি ও সাজা ভোগ করা  ভাই

    আত্মস্বীকৃত খুনি ও সাজা ভোগ করা ভাই

  • বাংলাদেশের বিদ্যমান রাজনৈতিক দল সমূহের উৎপত্তি, তাঁদের বিশ্বাস--'চলমান গনতন্ত্র পূণ:দ্ধারের আন্দোলন'

    বাংলাদেশের বিদ্যমান রাজনৈতিক দল সমূহের উৎপত্তি, তাঁদের বিশ্বাস--'চলমান গনতন্ত্র পূণ:দ্ধারের আন্দোলন'

  • ভারতের বিএনপি ও আওয়ামীলীগ

    ভারতের বিএনপি ও আওয়ামীলীগ

প্রশ্ন একটাই, আপনি নিরাপদতো??

প্রকাশ: ০৫ মার্চ ২০১৮

অজয় দাশগুপ্ত

জাফর ইকবাল আক্রান্ত হবার পর দেশবিদেশের বাংলাদেশীদের ভেতর যে প্রতিক্রিয়া তার আলোকে কয়েকটা কথা বলা জরুরী। তিনি একজন জনপ্রিয় লেখক। তাঁর আদর্শবোধ আর ননকম্প্রোমাইজিং আপোসহীন মনোভাব ই যে এই আক্রমণের কারন সেটা বলার দরকার পড়েনা। যতদিন তিনি বা বলিষ্ঠ ছিলেননা ততদিন তিনি আক্রান্ত হননি। যখন ই মুক্তিযুদ্ধ আর ইতিহাসের দিকে মোড় নিলেন শুরু হলো অপবাদ আর আক্রমন। এবার তাঁকে মেরে ফেলার চেষ্টা করা হয়েছিল। এই ঘটনা আকস্মিক হলেও অপরিকল্পিত না। তাছাড়া এটি অপ্রত্যাশিত ও ছিলোনা । তা নাহলে তাঁর সাথে পুলিশ থাকবে কেন? কিন্তু সেই দুই তিনজন পুলিশ তখন মোবাইলে ব্যস্ত। সেটা যতটা দোষের তারচেয়ে বড় কথা তাঁর ঘাড়ের ওপর দাঁড়িয়ে থাকা খুনী ঠেকাবে কে? সে সমাজ কি এখন আছে? না সেই মানসিকতা আছে মানুষের?


বলছিলাম প্রতিক্রিয়ার কথা। এইযে শ য়ে শ য়ে তরুণ তরুণী সমানে লিখে যাচ্ছে তাঁকে মারাটা জায়েজ বলছে এদের ঠেকাবে কে? যারা বলছে তিনি অধার্মিক বা নাস্তিক তার ব্যাখা কি? কে না জানে তিনি ঘোষিত নাস্তিক কেউ নন। বরং আমি ছবিতে দেখেছি তিনি আচরণ মেনে চলা একজন মানুষ। ধর্ম নিয়ে কখনো কোন বাজে বা উস্কানীমূলক কথাও লেখেননি তিনি। তবে তাঁর অপরাধ? একটাই। তিনি মুক্তিযুদ্ধের জন্য সব করতে পারেন। এ বিষয়ে আপোসহীন ক্রমে আওয়ামী রাজনীতিতে মিলে যাওয়া এই মুক্তপ্রাণ মানুষটি মূলত স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের জন্য  ঐতিহাসিক মার্চে আক্রান্ত হলেন।  আশ্চর্যের ব্যাপার এই দলের মানে আওয়ামী লীগের নেতারা কিন্তু কখনো আক্রান্ত হন না। মৌলবাদী বা জঙ্গি নামে পরিচিতেরা তাদের বিপজ্জনক মনে করেনা। মনে করে দূর্নীতিমুক্ত সহজ সাধারণ লেখক শিল্পী কিংবা মানবতাবাদী নিরীহ মানুষদের। এটাই ভয়ের । এই পর্যন্ত আমরা যে দেখছি তাতে নারকীয়  উল্লাসের শিকার হুমায়ূন আজাদ , অভিজিৎ রায় কিংবা দীপনের কেউই রাজনীতি করতেননা। বরং তারা সব অপরাজনীতি ও নোংরামীর বিরুদ্ধে ছিলেন সোচ্চার।


বলছিলাম সেইসব বিকৃত মানুষদের কথা যারা এই অল্প বয়সে মগজ ধোলাইয়ের শিকার। কতটা নির্মম ও বেপরোয়া হলে একটি তরুণ একজন মানুষকে পেছন থেকে এভাবে মারতে পারে। আর কতটা নিদর্য় ও অসভ্য হলে বাকীরা এমনভাবে হত্যা সমর্থন করতে পারে। সহনশীলতার নামে মন্ত্রীরা যা বলছেন তাতে সমস্যা সমাধানের কোন ইঙ্গিত নাই। বরং আছে দূর্ভাবনা। একজন বলছেন এসব সামাজিক মিডিয়া ঠেকানোর দায় আরেকজনের। এভাবে চললে একদিন সামাজিক মিডিয়া ই তৈরী করবে নতুন নতুন ঘাতক। মূলত রাজনীতি এমন এক জায়গায় চলে এসেছে যেখানে কেউ কাউকে বাঁচানো দূরে থাক  সাহায্য করতেও অনাগ্রঈ। শেখ হাসিনা আছেন বলে তাঁর জিরো টলারেন্স আর বোধোদয়ে জাফর ইকবাল স্যার ঢাকায় এসে বাঁচতে পেরেছেন। কিন্তু তারপর? 


এ ঘটনার পেছনে আসলে কারা সেটা কিভাবে বের হবে? তার আগেই মতামত বিভক্ত আর সত্য মিথ্যা মিলিয়ে এমন সব গুজবে দেশ সয়লাব যে কোনটা আসল কোনটা নকল সেটাই বোঝা মুশকিল। তবু বিরক্তির সাথে বলি, এভাবে চললে একদিন দেশ উজাড় হোক আর না হোক প্রগতি মুক্তবুদ্ধি এসব উজাড় হয়ে যাবে। সেদিন কথা বলার লোক ও খুঁজে পাবেননা। থাকবে সেইসব ছদ্মবেশী রাজাকারেরা যারা প্রগতির আচকান চাপিয়ে এদেশকে আবারো পাকি কায়দায় শাসনে মানুষকে রাতদিন পটাচ্ছে। উস্কাচ্ছে। জাফর ইকবালের মহাদোষ তিনি এদের দলে ছিলেননা। মাঝখানে কিছুদিন মধ্যপন্হী হলেও চলে এসেছিলন মুক্ত শিবিরে।


জাফর ইকবালের ওপর  এই আক্রমনের ভেতর দেশবিদেশে একটাই প্রশ্ন জেগে আছে, এরপর? আর কোন মানুষের ঘাড়ে নেমে আসবে সেই ঘাতকের অস্ত্র? এর কি আসলেই শেষ নাই?

আরও পড়ুন

চট্টগ্রামে পিতার সামনে সন্তান হত্যার মূল আসামী তুষার সঙ্গি সহ ভারতে আটক

চট্টগ্রামে পিতার সামনে সন্তান হত্যার মূল আসামী তুষার সঙ্গি সহ ভারতে আটক

চট্টগ্রামে ঈদের ২য় দিন নগরির চট্টেশ্বরী রোড়ের মোড়ে পিতার সামনে ...

লালমনিরহাটের চার পুলিশ কর্মকর্তা পুরস্কৃত

লালমনিরহাটের চার পুলিশ কর্মকর্তা পুরস্কৃত

আইনশৃঙ্খলার উন্নতি সাধন, আসামি তামিল, মাদক জব্দ ও সেবাদানে রংপুর ...

নড়াইলে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের দুর্দশা লাঘবে সরেজমিনে পরিদর্শন করলেন পুলিশ সুপার জসিম উদ্দিন পিপিএম

নড়াইলে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের দুর্দশা লাঘবে সরেজমিনে পরিদর্শন করলেন পুলিশ সুপার জসিম উদ্দিন পিপিএম

পত্র-পত্রিকায় বিভিন্ন সময়ে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপর চলমান নির্যাতন ও বর্বরতার ...

রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বিদায়ী সেনাবাহিনীর প্রধানের শেষ সাক্ষাৎ

রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বিদায়ী সেনাবাহিনীর প্রধানের শেষ সাক্ষাৎ

রাষ্ট্রপতি মো. আব্দুল হামিদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেছেন বিদায়ী সেনাবাহিনী ...

৩-০ গোলের ঘুরে দাঁড়ালো কলম্বিয়া

৩-০ গোলের ঘুরে দাঁড়ালো কলম্বিয়া

দুর্দান্তভাবে ঘুরে দাঁড়ালো কলম্বিয়া। দেখিয়ে দিলো ল্যাটিন আমেরিকান ফুটবলের সৌন্দর্য। ...

গাজীপুরসহ অন্যান্য সিটি নির্বাচন বর্জনের সিদ্ধান্ত ঢাকা বিএনপির, লন্ডনের না

গাজীপুরসহ অন্যান্য সিটি নির্বাচন বর্জনের সিদ্ধান্ত ঢাকা বিএনপির, লন্ডনের না

গাজীপুরসহ বাকি তিনটি সিটি করপোরেশন নির্বাচন নিয়ে প্রকাশ্য দ্বন্দ্বে জড়িয়ে ...

কুড়িগ্রাম-৩আসনে শেষ দিনে মনোনয়নপত্র

কুড়িগ্রাম-৩আসনে শেষ দিনে মনোনয়নপত্র

কুড়িগ্রাম-৩আসনের উপ-নির্বাচনে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিনে জাতীয় পার্টি ও আওয়ামীলীগের ...

নির্বাচন নিয়ে সংলাপের কোনো প্রয়োজন নেই : খাদ্যমন্ত্রী

নির্বাচন নিয়ে সংলাপের কোনো প্রয়োজন নেই : খাদ্যমন্ত্রী

খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম বলেছেন, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন যথাসময়েই অবাধ, ...