• আবারো শ্রেষ্ঠ ওসি হলেন প্রদীপ কুমার দাশ

    আবারো শ্রেষ্ঠ ওসি হলেন প্রদীপ কুমার দাশ

  • বর্ষবরণ অনুষ্ঠানে ভাঙচুর করল ছাত্রলীগ

    বর্ষবরণ অনুষ্ঠানে ভাঙচুর করল ছাত্রলীগ

  • রাজধানীর ৬ জায়গায় মিলবে রেলের ঈদের অগ্রীম টিকিট

    রাজধানীর ৬ জায়গায় মিলবে রেলের ঈদের অগ্রীম টিকিট

  • চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ কার্যক্রম স্থগিত করেছেন আদালত

    চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ কার্যক্রম স্থগিত করেছেন আদালত

  • দেশের ঐতিহ্যসহ পর্যটন স্পটগুলো বিশ্বের কাছে তুলে ধরুন : রাষ্ট্রপতি

    দেশের ঐতিহ্যসহ পর্যটন স্পটগুলো বিশ্বের কাছে তুলে ধরুন : রাষ্ট্রপতি

সেটা কোটার চেয়েও অনেক বেশি

মেধার ভিত্তিতে ৩৬তম বিসিএসএসে ৭০.৩৮ শতাংশ , ব্যাখ্যা দিলেন তারানা হালিম

প্রকাশ: ১১ এপ্রিল ২০১৮     আপডেট: ১১ এপ্রিল ২০১৮

ঢাকা প্রতিনিধি, বাংলাদেশ প্রেস

সরকারি নিয়োগে বিদ্যমান কোটা পদ্ধতির সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনকারীদের মধ্যে যে বিভ্রান্তি তৈরি হয়েছে তার একটি ব্যাখ্যা দিয়েছেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম। সোমবার জাতীয় সংসদ অধিবেশনে তিনি এই ব্যাখ্যা দেন।


সংসদে প্রতিমন্ত্রী বলেন, মাননীয় স্পিকার, আমাদের গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারে সংবিধানে ২৯ (৩) এর 'ক' তে বলা আছে, এই অনুচ্ছেদের কোন কিছু নাগরিকদের অনগ্রসর অংশ যাহাতে প্রজাতন্ত্রের  কর্ম উপযুক্ত প্রতিনিধিত্ব লাভ করিতে পারেন, সেই উদ্দেশ্যে তাদের অনুকূলে বিশেষ বিধান প্রণয়ন করা যাইবে।


সংবিধানে এই বিধানের ধারাবাহিকতায় বাংলাদেশে যে কোটার সিস্টেম করা হয়েছে। সেই খানে মেধার ভিত্তিতে ৪৫, নারী কোটা ১০, জেলা কোটা ১০, মুক্তিযোদ্ধা কোটা ৩০, প্রতিবন্ধী কোটা ১, ও ক্ষুদ্র-নৃগোষ্ঠী ৫ শতাংশ।


ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে যে বিভ্রান্তিটা ছড়িয়েছে, সেটিই হচ্ছে  জেলা কোটার ভিতরে যে কোটা বলা হয়েছে, ঢাকা বসবাসরত  যত বড় বিশ্ববিদ্যালয়ের আপনি ছাত্র-ছাত্রী হোন না কেন, ফরম পূরণ করার সময় নিচে যে জেলাটি লিখবেন সেটিই তার জেলা কোটা।


এছাড়াও জেলা কোটা যদি বাদ দেওয়া হয়, তাহলে প্রাকান্তরে নিজের অধিকারকে নিজেই খর্ব করছেন।


শিক্ষার্থী কাছে আরেকটি তথ্য পৌঁছানো উচিত সেটা হল, ৪ এপ্রিল ২০১৮ সালে জনপ্রশাসনের ১৭০১১০৩৫১৭৯৬  স্মারকের 'খ' নম্বর অনুচ্ছেদে সরকার পূর্বে নির্দেশনা জারি করেছে, সকল সরকারি নিয়োগের ক্ষেত্রে সরাসরি নিয়োগে কোন পদযুক্ত প্রার্থীর অভাবে পূরণ করা সম্ভব না হলেই,সেই সকল পদ মেধাতালিকায় শীর্ষে অবস্থানকারী প্রার্থীদের মধ্য থেকে পূরণ করিতে হইবে।


এছাড়াও বলা হয়েছে, মুক্তিযোদ্ধা, নারী ও ক্ষুদ্র ও নৃগোষ্ঠীর জন্য প্রণীত জাতীয় মেধা তালিকা থেকে পূরণ করিতেই হইবে।


এমনকি 'খ'তে বলা হয়েছে, তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণির পদ সমূহে সরাসরি নিয়োগের ক্ষেত্রে কোন বিশেষ কোটা মুক্তিযোদ্ধা, মহিলা, এতিম, ও ক্ষুদ্র ও নৃগোষ্ঠীর এবং শারীরিক প্রতিবন্ধী ও আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা সদস্য কোন পদ যোগ্য প্রার্থীর অভাবে পূরণ করা সম্ভব না হলেই, অপূর্ণ পদ সমূহ জেলার প্রাপ্যতা অনুযায়ী স্বস্ব জেলার সাধারণ প্রার্থীদের মধ্য থেকে মেধা তালিকায় শীর্ষে অবস্থানকারী প্রার্থী থেকে পূরণ করতেই হইবে।


তারানা হালিম একটি পরিসংখ্যানে তথ্য অনুযায়ী, মেধার ভিত্তিতে ৩৩তম বিসিএসএসে ৪৫ থেকে অনেক বেশি ৭৭.৪০ শতাংশ, ৩৫ তম বিসিএসএসে ৬৩.৬৯ শতাংশ, ৩৬তম বিসিএসএসে ৭০.৩৮ শতাংশ লোক চাকরি লাভ করেছে। আর সেটা কোটার চেয়েও অনেক বেশি ।


শিক্ষার্থী তাদের অধিকারের জন্য আন্দোলন করবে, সেটা সাংবিধানিক অধিকার ও যৌক্তিক কণ্ঠস্বর।


তবে, রাতের আঁধারে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের বাসায় হামলার কঠোর সমালোচনা করেন তথ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘এটা শিক্ষার্থীদের জন্য একটা কলঙ্কজনক ইতিহাস। উপাচার্যের মতো একজনের শিক্ষকের বাসভবনে নারকীয় হামলা, সেই সঙ্গে জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে ভাঙচুর,এটিকে কোনভাবেই দাবি আদায়ের পথ বলতে পারি না।


পূর্বে আমরা ছাত্র আন্দোলন অনেক দেখেছি, এই রকম ছাত্র আন্দোলন পূর্বে কখনোই দেখে নাই। সেই কারণে আমরা আন্তরিকভাবে দু:খিত ও লজ্জিত। কেননা একটা বয়সে আমরাও ছাত্র ছিলাম।


এছাড়াও সংসদে তারানা হালিম বলেন, স্বাধীনতা বিরোধী চক্ররা তাদের ফেসবুকে পেজে প্রায় ১৩ লাখ ফলোয়ার সৃষ্টি করেছে। তাদের এডমিনে কোন অ্যাকসেস নেই। যদি মত প্রকাশের স্বাধীনতা বাংলাদেশের সবার থাকে। তাহলে দলের থাকা উচিত। আওয়ামী লীগের থাকা উচিত। আমরা সমান অধিকার চাচ্ছি। ওই ফেসবুকে কোন কমেন্টও করা যায় না।


কোটা সংস্কারের আন্দোলনের সময় একজন তার ফেসবুক থেকে একটি অসত্য পোস্ট করেন, পুলিশের গুলিতে আহত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী মার গেছে, ওই পোস্টটি ৩৫ মিনিট ছিল। সেটি সমানে শেয়ার হতে থাকলো। কিন্তু ওই তথ্যটি ভুয়া।


পরে ওই ছাত্রটি নিজের নিজের ফেসবুক থেকে পোস্ট করেন আমি বেঁচে আছি।


পরবর্তী খবর পড়ুন : ভারতেও কোটা সংস্কার আন্দোলন চলছে


আরও পড়ুন

নোয়াখালীতে বাস-মটরসাইকেলের মুখোমুখী সংঘর্ষে নিহত ১, আহত -১

নোয়াখালীতে বাস-মটরসাইকেলের মুখোমুখী সংঘর্ষে নিহত ১, আহত -১

নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলার ছমির মুন্সীরহাট বাজারে বাস ও মটরসাইকেলের মুখোমুখী ...

চলচ্চিত্র পরিচালক হাসিবুল ইসলাম আর নেই

চলচ্চিত্র পরিচালক হাসিবুল ইসলাম আর নেই

চলচ্চিত্র পরিচালক হাসিবুল ইসলাম মিজান আর নেই (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ...

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ কার্যক্রম স্থগিত করেছেন আদালত

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ কার্যক্রম স্থগিত করেছেন আদালত

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের শিক্ষক নিয়োগ কার্যক্রম স্থগিত করেছেন উচ্চ ...

দেশের ঐতিহ্যসহ পর্যটন স্পটগুলো বিশ্বের কাছে তুলে ধরুন : রাষ্ট্রপতি

দেশের ঐতিহ্যসহ পর্যটন স্পটগুলো বিশ্বের কাছে তুলে ধরুন : রাষ্ট্রপতি

রাষ্ট্রপতি মো. আব্দুল হামিদ আজ দেশের ঐতিহ্যবাহী পর্যটন কেন্দ্রগুলো বিশ্বের ...

বাজেটে ভূমিকা রাখতে পারেন এমপিরা: স্পিকার

বাজেটে ভূমিকা রাখতে পারেন এমপিরা: স্পিকার

জাতীয় সংসদের স্পিকার ও অল পার্টি পার্লামেন্টারি গ্রুপ কমিশনের সভাপতি ...

নারীর প্রতি সহিংসতা রোধে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে অভিযোগ বক্স রাখার সুপারিশ

নারীর প্রতি সহিংসতা রোধে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে অভিযোগ বক্স রাখার সুপারিশ

নারীর প্রতি সহিংসতা রোধে প্রত্যেকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে একটি করে অভিযোগ ...

ধর্মীয় বিষয়ে আমরা হস্তক্ষেপ করব না: হাইকোর্ট

ধর্মীয় বিষয়ে আমরা হস্তক্ষেপ করব না: হাইকোর্ট

শাবান মাসের চাঁদ দেখা নিয়ে রিটের শুনানিতে হাইকোর্ট বলেছেন, এটা ...

ফেরদৌসের পর গাজী নুরের ভিসাও বাতিল ভারতে

ফেরদৌসের পর গাজী নুরের ভিসাও বাতিল ভারতে

ভারতের লোকসভা নির্বাচনের প্রচার করতে গিয়ে বিপাকে পড়েছিলেন বাংলাদেশি তারকা ...