• ঢাবি সাংবাদিক সমিতির কার্যালয়ে চুরি

    ঢাবি সাংবাদিক সমিতির কার্যালয়ে চুরি

  • প্রকল্প বাস্তবায়ন শেষে সরকারি গাড়ি ও সরঞ্জাম যায় কোথায়?

    প্রকল্প বাস্তবায়ন শেষে সরকারি গাড়ি ও সরঞ্জাম যায় কোথায়?

  • শিশু-কিশোর মাফিয়া গ্যাংয়ের তৎপরতা চরম তুঙ্গে,  আট দিনের ব্যবধানে খুন দুই কিশোর

    শিশু-কিশোর মাফিয়া গ্যাংয়ের তৎপরতা চরম তুঙ্গে, আট দিনের ব্যবধানে খুন দুই কিশোর

  • লালবাগের আগুন নিয়ন্ত্রণে

    লালবাগের আগুন নিয়ন্ত্রণে

  • লালবাগে কাগজের গুদামে ভয়াবহ আগুন

    লালবাগে কাগজের গুদামে ভয়াবহ আগুন

পদ্মা সেতুর ৪৫০ মিটার দৃশ্যমান

প্রকাশ: ১১ মার্চ ২০১৮     আপডেট: ১২ মার্চ ২০১৮

বাংলাদেশ প্রেস ডেস্ক

প্রমত্তা পদ্মার বুকে স্বপ্নের সেতু আরও দৃশ্যমান হয়েছে। বহুল কাঙ্ক্ষিত সেতুতে বসানো হয়েছে তৃতীয় স্প্যান।


রবিবার সকাল আটটা থেকে স্প্যানটি বসানোর কাজ শুরু হয়। ঘণ্টা দেড়েকের মধ্যে বসানো হয় স্প্যানটি।


এটি বসানোর দ্বারা পদ্মা সেতুর ৪৫০ মিটার দৃশ্যমান হয়েছে। এর আগে দুটি স্প্যানে ৩০০ মিটার দৃশ্যমান হয়।


গত বছরের অক্টোবরে প্রথম এবং গত ২৮ জানুয়ারি দ্বিতীয় স্প্যান বসানো হয়। এভাবে ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার দৈর্ঘ্যের পদ্মা সেতুতে ৪২টি খুঁটির ওপর বসবে ৪১টি স্প্যান।


রবিবার সকালে জাজিরা পয়েন্টের কাছে ৩৯ ও ৪০ নম্বর খুঁটির ওপর তৃতীয় স্প্যানটি বসানো হয় বলে জানিয়েছেন সেতু প্রকল্পের প্রকৌশলী হূমায়ুন কবীর।


এর আগে বিশ্বের সবচেয়ে বেশি ধারণক্ষমতার ভাসমান ক্রেন টিয়ান ইয়েহাও মাওয়ার কুমার ভোগের বিশেষায়িত জেটি থেকে ওয়ার্কশপের প্রায় তিন হাজার ২০০ টন ওজনের ভাসমান ক্রেনবাহী জাহাজটি এই স্প্যানটি পাজা করে নিয়ে আসে জাজিরায়।


এদিকে স্বপ্নের সেতু পদ্মার বুকে মাথা গজিয়ে উঠতে দেখে আনন্দের সীমা নেই দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের। অনেকে স্প্যান বসানো দেখতে ভিড় করেছেন জাজিরা পয়েন্টে।


দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের দীর্ঘ দিনের দাবি পদ্মা সেতু। বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর এই সেতু বাস্তবায়নের উদ্যোগ নেয়। তবে দুর্নীতি ষড়যন্ত্রের ধোঁয়া তুলে এই প্রকল্পে অর্থায়ন না করার ঘোষণা দেয় বিশ্বব্যাংকসহ কয়েকটি দাতা সংস্থা। পরে নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু করার ঘোষণা দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।


২০১২ সালে শুরু হয় সেতুর কাজ। ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার দৈর্ঘ্যের সেতুটিতে কয়েক দফা ব্যয় বেড়েছে। এখন প্রকল্প ব্যয় হয়েছে ৩০ হাজার ১৯৩ কোটি টাকা। প্রকল্পের অর্ধেকের বেশি কাজ ইতোমধ্যে সম্পন্ন হয়েছে। তবে চলতি বছরের ডিসেম্বরের মধ্যে এই সেতুর কাজ সম্পন্ন হওয়ার কথা থাকলেও তা হচ্ছে না।


এই সেতুটি চালু হলে ভাগ্যের দুয়ার খুলে যাবে দেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের মানুষের। জাতীয় অর্থনীতিতে এই সেতুটি বিশেষ ভূমিকা রাখবে বলেও আশা করা হচ্ছে।

পরবর্তী খবর পড়ুন : কিমের সঙ্গে বৈঠকের খবরকে ভিত্তিহীন ও ভুয়া বলে দাবি ট্রাম্পের


আরও পড়ুন

প্রকল্প বাস্তবায়ন শেষে সরকারি গাড়ি ও সরঞ্জাম যায় কোথায়?

প্রকল্প বাস্তবায়ন শেষে সরকারি গাড়ি ও সরঞ্জাম যায় কোথায়?

সরকারি যে কোনও প্রকল্প শেষে ওই প্রকল্পের কাজে ব্যবহৃত কম্পিউটার, ...

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, সড়কে মৃত্যু এবং অন্যান্য ঝুঁকির দিক পরিবর্তন করছে!

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, সড়কে মৃত্যু এবং অন্যান্য ঝুঁকির দিক পরিবর্তন করছে!

সড়ক দুর্ঘটনা বাংলাদেশের জন্য একটি বিষফোঁড়া হিসাবে চিহ্নিত ছিলো এতোদিন। ...

লালবাগে কাগজের গুদামে ভয়াবহ আগুন

লালবাগে কাগজের গুদামে ভয়াবহ আগুন

রাজধানীর পুরান ঢাকার শহীদ নগর এলাকার ৬ নাম্বার গলিতে আগুন ...

'৭১-এর ২৩ মার্চ : ফিরে দেখা

'৭১-এর ২৩ মার্চ : ফিরে দেখা

এটা ছিল আমাদের জীবনের এক স্মরণীয় দিন, রাজনীতির বিবেচনায় ঐতিহাসিক। ...

বাংলাদেশে সড়ক নিরাপদ করতে কমিটির শতাধিক সুপারিশ

বাংলাদেশে সড়ক নিরাপদ করতে কমিটির শতাধিক সুপারিশ

বাংলাদেশে সড়কপথে বিশৃঙ্খলা বা নৈরাজ্য বন্ধের জন্য সুপারিশ আর প্রতিশ্রুতির ...

জয়পুরহাটে জামাতার লাঠির আঘাতে শাশুড়ির মৃত্যু!

জয়পুরহাটে জামাতার লাঠির আঘাতে শাশুড়ির মৃত্যু!

জয়পুরহাট সদর উপজেলার পশ্চিম পারুলিয়া গ্রামে মেয়ে জামাইয়ের লাঠির আঘাতে ...

সড়কে শৃঙ্খলা ফেরাতে ১৪ দফা দাবি দিলো গণফোরাম

সড়কে শৃঙ্খলা ফেরাতে ১৪ দফা দাবি দিলো গণফোরাম

বাংলাদেশের সড়কে নিরাপত্তা ও শৃঙ্খলা ফেরাতে ১৪ দফা দাবি জানিয়েছে ...

যে কারণে জি এম কাদেরকে সরালেন এরশাদ

যে কারণে জি এম কাদেরকে সরালেন এরশাদ

গত ২০ মার্চ ছিল জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি ...